• ডায়াল ১৬৬২২ (২৪/৭)
  • গার্ডিয়ান শিল্ড

    গার্ডিয়ান শিল্ড

    গার্ডিয়ান শিল্ড একটি টার্ম লাইফ ইনস্যুরেন্স প্ল্যান যা নামমাত্র প্রিমিয়ামে এবং খুব সহজেই আপনার পরিবারের বর্তমান এবং ভবিষ্যতের আর্থিক সুরক্ষা নিশ্চিত করবে। বীমা গ্রাহকের অনাকাঙ্ক্ষিত মৃত্যু অথবা দুর্ঘটনাজনিত স্থায়ী পঙ্গুত্বে গার্ডিয়ান শিল্ড গ্রাহক কে সম্পূর্ণ বীমা অংক প্রদান করবে। এই পরিকল্পের আওতায় গ্রাহক অন্যান্য এন্ডাওমেন্ট পরিকল্পের তুলনায় অনেক কম প্রিমিয়ামে একই প্রকার বীমা সুবিধা পেতে পারবেন। এছাড়াও, এই প্রকল্পটির মাধ্যমে গ্রাহকগন খুব সহজে এবং সুলভে স্বাস্থ্য বীমা এবং গুরুব্যাধি বীমা নিতে পারবেন।


    কেন গার্ডিয়ান শিল্ড?

    • বার্ষিক মাত্র ২০৩ টাকায় ১ লক্ষ টাকা পর্যন্ত কভারেজ (সর্বোচ্চ ১ কোটি টাকা পর্যন্ত)
    • স্বাস্থ্য বীমা কভারেজ (৫০ হাজার থেকে ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত) এবং ক্যাশলেস ফ্যাসিলিটি
    • ১৮টি মারাত্মক রোগের জন্য সর্বোচ্চ ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ক্রিটিক্যাল ইলনেস কভারেজ
    • অনলাইনে প্রিমিয়াম পরিশোধ, বীমা দাবি উত্থাপন এবং আয়কর রেয়াতের সুবিধা

    মূল বৈশিষ্ট্য এবং সুবিধাসমূহ:

    • বীমা সুবিধাঃ মৃত্যু অথবা সম্পূর্ণ ও স্থায়ী পঙ্গুত্বের ক্ষেত্রে পূর্ণ বীমা অংক পরিশোধযোগ্য।
    • বীমায় অন্তর্ভুক্তির বয়সঃ ১৮-৬০ বছর।
    • বীমা মেয়াদ পূর্তিতে সর্বোচ্চ বয়সঃ ৭০ বছর।
    • প্রিমিয়াম প্রদান পদ্ধতিঃ বীমার শুরুতে এককালীন অথবা বার্ষিক প্রিমিয়াম।
    • বীমা কভারেজঃ ১ লক্ষ টাকা থেকে ১ কোটি টাকা পর্যন্ত।
    • প্রথম প্রিমিয়াম এর সাথে বীমা ষ্ট্যাম্প ফি আলাদাভাবে প্রদান করতে হবে, যা শুধুমাত্র প্রথম বছরের জন্য প্রযোজ্য।
    • মেয়াদঃ ৩-২৫ বছর।
    • ১ লক্ষ টাকার বীমা অংকের জন্য বার্ষিক প্রিমিয়াম সর্বনিম্ন ২০৩ টাকা থেকে শুরু এবং সম্পূর্ণ মেয়াদ পর্যন্ত প্রিমিয়াম হার অপরিবর্তনীয়।
    • মাইগার্ডিয়ান অ্যাপ, বিকাশ, রকেট, নগদ অথবা অনলাইন ব্যাংকিং-এর মাধ্যমে প্রিমিয়াম পরিশোধের সুবিধা।
    • অবলিখন চাহিদাদি কোম্পানী নির্ধারিত নীতিমালা এবং পুনর্বীমা চুক্তি অনুযায়ী নির্নয় করা হবে ।
    • এ পরিকল্পের আওতায় কোন মেয়াদ পূর্তি বা সমর্পণ মূল্য প্রযোজ্য নয়।
    • সহযোগী বীমা হিসেবে স্বাস্থ্যবীমা এবং গুরুব্যাধি বীমা নেয়া যেতে পারে।


    মূল বৈশিষ্ট্য এবং সুবিধাসমূহ:

    • বীমা সুবিধাঃ অসুস্থতা বা দুর্ঘটনায় আঘাতজনিত কারণে চিকিৎসক কর্তৃক হাসপাতালে ভর্তির পরামর্শ নিয়ে কোন গ্রাহক হাসপাতালে ভর্তি হলে নিম্নোক্ত বীমা সুবিধা পাবেনঃ
      1. কেবিন/ বেড ভাড়া।
      2. আইসিইউ/ সিসিইউ/ এইচডিইউ চার্জ।
      3. ডাক্তারের পরামর্শ ফি, ডাক্তারী পরীক্ষার ব্যয়, ঔষুধের মূল্য, সার্জিকাল চার্জেস ইত্যাদি।
    • কভারেজঃ ৫০ হাজার টাকা থেকে ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত (মূল বীমার সর্বোচ্চ ৫০ শতাংশ)।
    • বীমায় অন্তর্ভুক্তির বয়সঃ ১৮-৫৫ বছর। মেয়াদপূর্তিতে বয়স ৬৫ বছরের বেশি হবে না।
    • অপেক্ষমান সময়ঃ শুরুতে প্রথম ৩০ দিন (দুর্ঘটনাজনিত চিকিৎসা ব্যতীত)।
    • দেশজুড়ে ৩৪৫+ পার্টনার হাসপাতাল এবং ডায়াগনস্টিক সেন্টার।
    • Health Card প্রদর্শনে ডাক্তারী পরীক্ষার উপর আকর্ষণীয় ছাড়।


      মূল বৈশিষ্ট্য এবং সুবিধাসমূহ:

      • কভারেজঃ ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত (মূল বীমার সর্বোচ্চ ৫০ শতাংশ)।
      • বীমায় অন্তর্ভুক্তির বয়সঃ ১৮-৫৫ বছর।
      • মেয়াদপূর্তিতে বয়স ৬০ বছরের বেশি হবে না।
      • অপেক্ষমান সময়ঃ বীমার শুরুতে ১৮০ দিন।
      • বীমা সুবিধাঃ নিম্নে বর্ণিত ১৮ টি মারাত্মক রোগের যে কোন একটি রোগ নির্ণীত হলে এবং তৎপরবর্তী ৩০ দিন জীবিত থাকলে সহযোগী বীমার কভারেজের টাকা এককালীন প্রদেয়ঃ
        • ক্যান্সার (নন-ইনভ্যাসিভ ক্যান্সার ও স্কিন ক্যান্সার ছাড়া)
        • হার্ট এ্যাটাক (মাইয়োকার্ডিয়াল ইনফার্কশন)
        • স্ট্রোক
        • করোনারি আর্টারী সার্জারী
        • কিডনী ফেইলিওর (যে পর্যায়ে ডায়ালাইসিস্ চিকিৎসা প্রয়োজন)
        • গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ প্রতিস্থাপন
        • প্যারালাইসিস
        • মাল্টিপল স্কে¬রোসিস
        • অন্ধত্ব
        • হার্ট ভাল্ভ রিপ্লেসমেন্ট
        • সার্জারী অব আওরটা
        • ব্লাড ক্যান্সার (এ্যাপ্লাস্টিক অ্যানিমিয়া)
        • বিনাইন মস্তিষ্কের টিউমার
        • ফুসফুসের দীর্ঘমেয়াদী মারাত্মক রোগ (ফুসফুসের দীর্ঘমেয়াদী রোগের শেষ ধাপ)
        • বধিরতা
        • মাথায় গুরুতর আঘাত
        • অঙ্গহানি
        • বাকশক্তি হারানো


      যোগাযোগ করুন